আমার আগের লেখাটি (কীভাবে জার্মানিতে আনবেন মা-বাবা কে? পর্ব – ১) ছিল ফামিলি রি-ইউনিয়ন সর্ট টার্ম ভিসা রিলেটেড,যেখানে বিস্তারিত ছিল কি করে আপনার প্যারেন্টস বা সিবলিংসদের জার্মানিতে নিয়ে আসতে পারেন। আজকের লেখাটি তাদের জন্য যারা আমাকে অনেক সময় ইনবক্সে প্রশ্ন করেন এখানে আসার পর প্যারেন্টস বা সিবলিংসদের ভিসা কি করে এক্সটেনশন করা যায় । আপুদের ভাইরা আর আমার বোনেরা আবার ভেবে নিয়েন না এইটা রেসিডেন্স পারমিট এর প্রসেস বয়ান করছি। ইহা শর্ট টার্ম ৩ মাসের ভিসাখানা কে কি করে চান্সে আরো ২/১ মাস বাড়িয়ে নেয়া যায় তারই সংক্ষিপ্ত বিবরণ। বিবরণে আসি, খুব একটা কঠিন প্রসেস না। আবেদনকারীর যে সব পেপার লাগবে:

১। আপনার জব সেলারি ষ্টেটমেন্ট ।
২। প্যারেন্টস এর ইনস্যুরেন্স এক্সটেনশন একরডিং টূ কত দিনের এক্সটেন্সন চান। এখানে এক্টূ বলে রাখি,সেঞ্জেন ভিসা বা এই ধরনের শর্ট টার্ম ভিসা আসলে ৯২ দিন ফিক্স করা নিয়ম অনুযায়ী। এবার কেউ যদি দেশে থেকে এর থেকে কম ভিসা এন্ট্রি পারমিশন নিয়ে আসে তাহলে পুরা ৯২ দিনের এক্সটেনশন পাবেন। আর যিনি ৯২ দিনের ভিসা নিয়েই এসেছেন মূলত ফায়দাটা ওনারাই পাবেন।
৩। পাসপোর্ট নিতে ভুলবেন না,আপনার ও প্যারেন্টসের ।
৪। ক্যাশ টাকা নিবেন বা আপনার ইসি কার্ড ।

পরবর্তী কাজ হবে আউসল্যান্ডারবিহরডের টারমিন নেয়া । সেফ সাইটে থাকার জন্যে আমি পরামর্শ দিব ভিসার মেয়াদ শেষ হবার ৭/১৫ দিন আগে টারমিন নেয়া। টারমিন এর অপসনে দেখবেন Schengen – Visum – Verlängerung এইটা লেখা । আমি যেহেতু বার্লিন থাকি তাই আমি বার্লিন অফিসের লিংক দিলাম।
https://service.berlin.de/dienstleistung/324785/

এর জন্যে ফোন করে টারমিন পাওয়া যায়, আর বাই এনি চ্যান্স ফোনে না পেলে এইটার Aufenthaltserlaubnis für Ehepartner, Eltern und Kinder von ausländischen Familienangehörigen একটা টারমিন নিলেও হয় । টারমিনের ডেট মতো প্রয়োজনীয় কাগজ নিয়ে চলে যাবেন এপ্লিকান্ট কে সাথে নিয়ে । আর যদি আপনি বার্লিন বাসি হন তাহলে সরাসরি চলে যেতে পারেন এই ঠিকানায় Keplerstraße 2 ,10589 Berlin ।

এবারের কাজটা আসলে আপনার যে আপনি কি করে ভিও কে মেনেজ করবেন। প্রয়োজনে ডাক্তারের কাগজ ও দিতে পারেন কিম্বা ভ্যালিড কারন থাকলে সেটার কাগজ বা প্রুফ দিবেন। মূলত ১৫ থেকে ৬০ ইউরো লাগে ভিন্ন ভিন্ন সময়ের জন্যে,আমার থেকে এক ইউরো ও নেয় নাই তাই বলে ভাববেন না আমার সাথে ভিওর কোন আত্মীয়তা আছে। মন চায় নাই তাই নেয় নাই, সব কিছুই ওনাদের মন মর্জি । সো কথা হইল আপনি মেইনলি ভিসা এক্সটেনশনের জন্য চেষ্টা করতে পারেন, নরমালি দিয়ে দেয়। কিন্তু ভাগ্য খারাপ হলে নাও পেতে পারেন, এইটা মাথায় রেখেই চেষ্টা করতে পারেন। আমি আবার যে কোন রিস্ক নিতে পারি তাই মনে হয় আমি কোন কাজে আটকে থাকি না। সাহস করে একবার চেষ্টা করে দেখেন মে-বি আপনার ও ভাগ্য ভাল হতে পারে। আমার আম্মুকে অবশ্য দুই বারই ২ মাস করে বাড়িয়ে দিয়েছিল। আপনি এক মাস পেলেও আমি মনে করি লাভ আর যদি দুই মাস পান তাহলে তো ঈদ! মনে রাখবেন সাহস করে আপনি যদি ভ্যালিড পয়েন্ট বা রিজন দিতে পারেন তাহলে এক্সটেনশন পাক্কা।

আজকের মতো এখানেই শেষ করলাম দোয়া করবেন আমার জন্য কারন আগামি ফেব্রুয়ারী তে আম্মার জন্য রেসিডেন্স পারমিট এর চেষ্টা করব । ১০০ ভাগ রিস্ক নিয়ে! সফল হইলেই আপনাদের জন্য নতুন লেখা দিব তখন আপ্নারা ও চেষ্টা করতে পারবেন। অগ্রিম ধন্যবাদ।


কীভাবে জার্মানিতে আনবেন মা-বাবা কে? পর্ব – ১


ফ্যামিলি রিইউনিয়ন ভিসা সাক্ষাৎকার অভিজ্ঞতা

ফ্যামিলি রিইউনিয়ন ভিসার আদ্যপন্ত

স্পাউস ভিসা – মাস্টার্স স্টুডেন্ট, ড্রেসডেন অভিজ্ঞতা

ফ্যামিলি রিইউনিয়ন ভিসার খুঁটিনাটি:

জার্মানিতে এসে ভিসা বাড়ানোর উপায় ও জরুরী কাগজপত্র

স্পাউস ভিসার আদ্যোপান্ত – জার্মানি – Spouse visa / Family-reunion visa / Familiennachzugsvisum

পুলিশ ক্লিয়ারেন্স সার্টিফিকেট