আসসালামু আলাইকুম।
অনেক দিন ধরেই লেখার ইচ্ছা থাকা সত্ত্বেও সময়ের অভাবে লেখা হয়ে ওঠেনি। ইদানীং অনেকেই এই বেপারে আমাকে অনেক প্রশ্ন করছে দেখে মনে হল অত্যন্ত গুরুত্বের সাথে যত তাড়াতাড়ি সম্ভব লেখা উচিৎ। এতেকরে আমার পরিচিত বা অপরিচিত সকলেই উপকৃত হবেন। যাই হোক ঘ্যানর ঘ্যানর না করে মূল লেখাই আসি।
মূল কথার আগে সকলের কাছে ক্ষমা প্রার্থনা করে নিচ্ছি কেননা আমার হিসাবে দীর্ঘ ১ যুগ পরে বাংলায় লিখছি কমপক্ষে ১০০ টা ভুল হওয়ার কথা 😛 এবং আমার জানায় কমতি বা ক্ষুদ্র ত্রুটি থাকতে পারে। আশা করি কমেন্ট সেকশন থেকে তার প্রতিকার পাব।


আমি এই লেখাকে মূলত ৩ ভাগে ভাগ করেছি।
১। ছোট প্রশ্ন উত্তর।
২। আমার অভিজ্ঞতা।
৩। আমার মতে যা করনীয়।


পেছনের কথা:
আমি বাংলাদেশ থেকে কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং এ ব্যাচেলর শেষ করে ৪+ বছর সফটওয়্যার ডেভেলপমেন্টে চাকরি করে উচ্চতর ডিগ্রীর (M.Sc.) আশায় জার্মানিতে আসি। আমি ইউ ব্লু কার্ড পেতে বার্লিনের “State Office for Immigration” এ এপ্লাই করি। তাই আমার এই লেখাটি যাদের ব্যাকগ্রাউন্ড আমার সাথে মিলে তাদের জন্য বেশি প্রযোজ্য। কিন্তু আমি চেষ্টা করব সবার জন্য লেখাটা লিখতে। কারণ ব্যাকগ্রাউন্ড ভিন্ন হলেও দুই একটা ব্যাপার ছাড়া বেসিক কাহিনী প্রায় সব একি।


১। ইউ ব্লু কার্ড পেতে কি M.Sc. শেষ করে সার্টিফিকেট পেয়ে তারপর এপ্লাই করতে হয়?
উত্তর: না

২। ইউ ব্লু কার্ড পেতে কি M.Sc. শেষ করতে হয়?
উত্তর: না

৩। ইউ ব্লু কার্ড পেতে কি M.Sc. এর থিসিস শেষ করতে হয়?
উত্তর: না

৪। মজা করতাছেন?
উত্তর: না

৫। প্রমাণ আছে?
উত্তর: হ্যাঁ
https://service.berlin.de/dienstleistung/324659/en/
এইখানে দেখতে পারেন। যার প্রথম অংশ হল এইরকম:
“Prerequisites
Specific university degree
You have
a degree from a German university or
a degree from a foreign university which is recognised in Germany, or
a different degree from a foreign university which is comparable to a German degree.
You can check the “anabin” database to see whether your foreign degree is recognised. You will find a link to this database in the “More information” section.
If your degree is not evaluated in this database, you can have a certificate assessment carried out specially for your degree. This will incur additional costs. You can find more about certificate assessment in the “More information” section.”
আমি এপ্লাই করেছি দ্বিতীয় অপশনের মাধ্যমে: “a degree from a foreign university which is recognised in Germany” এইখানে ডিগ্রি বলতে B.Sc. কে বুঝানো হয়েছে আমার ক্ষেত্রে। অন্যদের জন্য অন্য কিছু হতে পারে।
তো কিভাবে বুঝব আমার পাশ করা ডিগ্রি জার্মানিতে গ্রহণযোগ্য? তার উত্তর পরেই দেয়া: “You can check the “anabin” database to see whether your foreign degree is recognised.”
https://anabin.kmk.org/no_cache/filter/institutionen.html
এইখানে যেয়ে যদি দেখেন আপনার ইউনিভার্সিটির স্ট্যাটাস H+ তাহলে আপনি বুঝতে পারবেন আপনার পাশ করা ডিগ্রি জার্মানিতে গ্রহণযোগ্য।
মজার ব্যাপার হল যদি তাও না হয় তাহলে আপনি তৃতীয় অপশনে এপ্লাই করতে পারবেন 😆
আমি যেহেতু কনফিউশনে ছিলাম তাই আমি আমার M.Sc. করারত জার্মান ইউনিভার্সিটিতে আমার কোর্স সম্পন্ন হওয়ার কনফার্মেশন পেপার চাই (যেহেতু আমার থিসিস তখনো চলমান) এবং সেটা বার্লিনের “State Office for Immigration” এ জমা দেই।
এখন মনে হয় আমি উপরের সকল উত্তরের প্রমাণ দিতে পেরেছি।

৬। ইউ ব্লু কার্ড পেতে কি চাকরি পেতে হয়?
উত্তর: হ্যাঁ। এই ক্ষেত্রে কোনও মাফ নাই বরং কিছুটা কঠোরতা আছে (পরের সেকশনে ব্যাখ্যা করেছি) 😜

৭। ইউ ব্লু কার্ড পেতে কি চাকরি শুরু করতে হয়?
উত্তর: না।
“Employment
You already have an employment contract or a concrete offer.”
এইখানে বেপারটা একটু খোলাসা করি। আপনার কাছে কন্ট্রাক্ট পেপার থাকলেই আপনি এপ্লাই করতে পারবেন। সেক্ষেত্রে আপনার ইউ ব্লু কার্ডের মেয়াদ আপনার চাকরি শুরু করার প্রথম দিন থেকে শুরু হবে (আমি যতদূর জানি)। এই ক্ষেত্রে আমার মতে আপনারা যারা থিসিস শুরু করেননি বা করছেন, এখনি চাকরি খোঁজা শুরু করে দিতে পারেন। চাকরি পেয়ে গেলে তাদেরকে বলুন আপনি কবে থেকে শুরু করতে পারবেন (অবশ্যই আপনাদের সবাইকে অনুরোধ করব, দয়া করে ডিগ্রি শেষ করে চাকরি শুরু করুন। যার ফল আপনি আপনার বেতনে পাবেন। জার্মানিতে উচ্চতর ডিগ্রীপ্রাপ্তরা সাধারণত বেশি বেতন পেয়ে থাকে। এছাড়াও আরও সুবিধা থাকতে পারে, জানা নেই।), সেই দিন থেকে আপনাকে কন্ট্রাক্ট পেপার দিতে বলুন। আপনার ডিগ্রি শেষ হওয়ার আগেই যদি আপনি কন্ট্রাক্ট পেপার পেয়ে যান তাহলে সাথে-সাথে ইউ ব্লু কার্ডের জন্য এপ্লাই করুন।

৮। ইউ ব্লু কার্ড পেতে বেতন যত ইচ্ছা তত পেলেই হবে?
উত্তর: না।
আমার মতে, এটাই আসল ব্যাপার।
“Minimum salary
You can only get the EU Blue Card if you earn enough. The amount you need to earn depends on your job.
If you work in a shortage occupation, you need to earn EUR 3,692.00 gross per month or more. (This equates to EUR 44,304.00 per year.) Shortage occupations are specific occupations for which there are not enough workers in Germany. These professions at present are: Scientists in natural science disciplines, mathematicians, architects, interior, urban and traffic planners, designers, engineers, scientific engineers, physicians (except dentists) and those with academic qualifications in information and communications technology.
If you are working in another profession, you will need to earn EUR 4,733,33 gross per month or more. (This equates to 56,800.00 Euro per year.)
Note: Success bonuses and other fully variable special payments are not taken into account.”
বড়ই কঠোর: “You can only get the EU Blue Card if you earn enough.”
এখানে একটা কথা বলে রাখা ভাল, আপনার কন্ট্রাক্ট কি টেম্পোরারি নাকি আন-লিমিটেড সেটা ফ্যাক্ট হতে পারে। আন-লিমিটেড হলে উপরে উল্লিখিত বেতন পেলেই চলবে। টেম্পোরারি হলে কি সমস্যা বা কি করনীয় বা আদৌ কোন সমস্যা আছে কিনা জানা নেই।
“Possibly: Approval of the German Federal Employment Agency (Bundesagentur für Arbeit)
You need the approval of the Federal Employment Agency if you
work in a shortage occupation and
earn less than EUR 4,733,33 gross per month.”
Gross বেতন প্রত্যেক মাসে 4,733,33 অপেক্ষা বেশি ছিল তাই অন্য কোনও কিছু লাগেনি। তবে কম হলেও খুব একটা সমস্যা হওয়ার কথা না। কারণ এইখানে শুরুতেই “Possibly” লেখা আছে 😜। অন্য কিছু চাইলে আর আপনার কাছে না থাকলে আপনি সুন্দর করে বুঝিয়ে বলতে পারেন। আশাকরি সে বা তারা বুঝবেন। না বুঝলে কি করতে হবে তা শেষে বলা আছে।
বাকি “Prerequisites” আর “Documents required” সেকশনগুলো দেখে নিবেন নিজ দায়িত্বে। আশাকরি বুঝতে কোনও সমস্যা হবে না।

৯। ইউ ব্লু কার্ড পেতে কতদিন সময় লাগে?
“Average time to process request
Around 5–6 weeks”
কিন্তু করোনার কারণে ৬-৮ সপ্তাহ। আমি সপ্তম সপ্তাহে পেয়েছি।

১০। আর কোনও প্যাঁচাল বাকি আছে আপনার?
উত্তর: হ্যাঁ 😆
আপনার চাকরি অন্য কোনও ষ্টেটে হলে, আপনি যেই ষ্টেটে এখন বসবাস করছেন সেখানকার “State Office for Immigration” or “kvr” এ ইউ ব্লু কার্ডের জন্য এপ্লাই করুন।
আপনার কাছে কোনও ডকুমেন্ট না থাকলে আপনি আপনার কাছে যা যা আছে তাই জমা দিয়ে আসতে পারেন। আপনাকে তারা তাদের ইমেইল এড্রেস দিয়ে দিবে যেখানে আপনি পরবর্তীতে ডকুমেন্ট পাঠিয়ে দিতে পারেন। কোনও সমস্যা নেই।


আপনাদের সকলের জীবন সুখী হোক আর সকলের কাছে দোয়া চেয়ে লেখাটার ইতি টানলাম। আল্লাহ হাফেজ।