TU Dortmund এর Automation & Robotics এবং Uni Bremen এর Information and Automation Engineering কোর্সদুটি আপাতভাবে রোবোটিক্স বা অটোম্যাশান কোর্স মনে হলেও তাদের মধ্যে বেশ পার্থক্য রয়েছে। আমি কোর্স দুটোর বিভিন্ন বিষয়ে বিষদভাবে তুলনামূলক আলোচনা করার চেষ্টা করলাম। আশাকরি কোর্স বাছাই করার সময় এই লেখাটি আগত ছাত্র ছাত্রীদের কিছুটা উপকারে দিবে।

ম্যাথ:
ডর্টমুন্ডে ম্যাথসের অনেকগুলো কোর্স করতে হবে। এখানে Advanced Engineering Mathematics ম্যান্ডাটরি কোর্স, অপশনাল হিসেবে আরও কমপক্ষে দুটি ম্যাথকোর্স নিতেই হবে। Statistics for Researchers in Engineering Sciences কোর্সটি সহজ এবং প্রোব্যাবিলিটি নিয়ে খুব ভালো পড়ানো হয় এখানে, অতি সহজে পাশ করা যায়। এছাড়া Mathematical Simulation Techniques আছে, খুবই কঠিন এবং দুর্বোদ্ধ, মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারদের জন্যে এইটা, ফ্লুইড মেকানিক্সের কোর্স। আমি যদিও মেকানিক্যাল থেকে পড়েছি তবুও এই কোর্সটাকে চরম বিরক্তি লেগেছে। এবং খুবই কঠিন একটা সাবজেক্ট।

এছাড়া Scheduling Problems and Solutions নামে একটি ১০ ক্রেডিটের কোর্স আছে, বেশ কঠিন কিন্তু খুবই দরকারী একটি কোর্স। প্রফেসর খুবই চমৎকার পড়ান, কিন্তু পরীক্ষায় বাঁশ দেন!

ব্রেমেনে আবার কোন ম্যাথ সাবজেক্ট অফার করেনি। System Theory কোর্সটির বেশ কিছুটা ম্যাথ, তবে বেশ কিছুটা কন্ট্রোল থিওরিও আছে এখানে।

কন্ট্রোল থিওরি:
আগেই বলে নেই, কন্ট্রোল থিওরি সাবজেক্টা কম্পিউটার সায়েন্স থেকে আসা শিক্ষার্থীদের জন্য সাক্ষাৎ আজরাইল। এই মডিউলের যতগুলো কোর্স আছে সবগুলোই তাদের জন্য চড়ম পীড়াদায়ক হবে সেটা হলফ করে বলতে পারি। ইলেক্ট্রিক্যালদের জন্যও এইটা কঠিন, তবে, মেকানিক্যালদের থেকে ইলেক্ট্রিক্যালের শিক্ষার্থীদের জন্য এই মডিউলের কিছু সাবজেক্টের কিছু কিছু অংশ (যেমন ফ্রিকুয়েন্সী এনালাইসিস করে বোডে ডায়াগ্রাম দিয়ে কন্ট্রোলার ডিজাইন করা ইত্যাদি) একটু সহজতর। তবে রোবোটিক্স বা অটোম্যাশান পড়তে আসলে কন্ট্রোল থিওরিতে মাষ্টার হতেই হবে। এছাড়া আর কোন গতি নেই, যত কষ্টই হোক।

ব্রেমেন বেশ ভাল সাজানো গোছানো এবং কম্প্যাক্ট আকারে কন্ট্রোল থিওরির মডিউল ডিজাইন করেছে। আসলে ব্রেমেনের ম্যান্ডাটরি মডিউলটা প্রায় পুরোটাই কন্ট্রোল থিওরির উপর। ১০টা ম্যান্ডাটরি কোর্সওয়ার্কের মধ্যে ৫টাই কন্ট্রোল থিওরি নিয়ে। Process Automation I and II, Dynamic Systems I and II, Control Systems I গুলো পিউর কন্ট্রোল থিওরি। তার মধ্যে ডাইনামিক সিস্টেম ১ কোর্সটি ডর্টমুন্ডে নেই। এবং এই ডাইনামিক সিস্টেম ১,২ কোর্স দুটো পুরাই মেকানিক্যালদের জন্যে, খুবই ভালো লেগেছে কোর্স কন্টেন্ট দেখে, এবং ডর্টমুন্ডে এইদুটো কোর্সের অতি সামান্য একটু অংশ পড়ায়।

দুটো ল্যাব Advanced Control Systems Lab, Process Automation Lab ও অনেক ভালো। কন্ট্রোল সিস্টেম ল্যাবটি আবার হার্ডকোর মেকানিক্যাল দের জন্য, তবে খুবই উন্নতমানের এক্সপেরিমেন্ট। এমন কোন ল্যাব কোর্স আবার ডর্টমুন্ডে নেই।

এবং প্রসেস অটোমেশান ল্যাবটি আবার হার্ডকোর ইলেক্ট্রিক্যালদের জন্যে। প্রায় এরকম কিন্তু এর থেকে সামান্য একটিু বড় একটা ল্যাবকোর্স ডর্টমুন্ডে রয়েছে।

ডর্টমুন্ডের কন্ট্রোল থিওরির মডিউলটি আমার কাছে পরিপূর্ণ লেগেছে। তবে সেখানে না ইলেক্ট্রিক্যাল, না মেকানিক্যাল ঘেঁষা। ডর্টমুন্ডের কন্ট্রোল থিওরি পুরোটাই ক্যামিক্যাল প্রসেসকে কেন্দ্র করে। এখানে EEE, ME, CSE সবাইকেই স্ট্রাগল করতে হবে শুরুতে। তাছাড়া এখানে পি.এল.সি. এবং অপটিমাইজেশানের অনেক উন্নত এবং খুবই দরকারী কোর্সগুলো রয়েছে যেগুলো ব্রেমেনে নেই।

রোবোটিক্স:
ব্রেমেনের কোর্সটির টাইটেল দেখেই বলা যায় এটি রোবটিক্সের জন্য নয়। এবং তাই দেখলাম। অপশনাল হিসেবে Robotics I + II কোর্সদুটি দেওয়া হয়েছে এবং কোর্স কন্টেন্ট দেখলাম একদম সাদামাটা।
সেই তুলনায় ডর্টমুন্ডে বেশ কঠিন পর্যায়ের রোবোটিক্স পড়ানো হয়।
Fundamentals of Robotics,
Application of Robots,
Simulation in Robotics ,
Computer Vision in Robotics and Automation ,
Computer Vision,
3 D Computer Vision,
Modeling and Control of Robotic Manipulators,
Computational Intelligence এবং
Learning in Robotics
৮টা কোর্স অফার করে। তার মধ্যে রোবোটিক্স মেজর নিলে ৫ টা মিনিমাম (৬টা নিলে ভালো) কোর্স করতে হবে। এবং এটি একটি অসাধারণ কারিকুলাম রোবোটিক্স ফেনাটিকদের জন্যে। তাই রোবোটিক্স নিয়ে ফ্যানটিসিজম থাকলে ডর্টমুন্ডেই আসা উচিত।

কগনিটিক্স ও কমিউনিকেশান
ডর্টমুন্ডে কগনিটিক্স নিয়ে স্পেশালাইজেশান আছে।
Computer Systems ,
Signal Processing for Robotics & Control,
Networked Mobile Robot Systems,
Mobile Communication Networks,
Cyber-Physical System Fundamentals,
Methods of Information Technology কোর্সগুলা ই.ই.ই. ও সি.এস.ই. শিক্ষার্থীদের জন্যে সহজতর। এবং ভালো ল্যাব ও টিউটোরিয়ালও আছে এগুলোর সাথে। কোর্সগুলোও সহজ এবং ঝামেলাহীন। শুধু মেথডস অফ ইনফরমেশান টেকনোলজীটা ১০ ক্রেডিটের এবং তাই অনেক পড়া। এবং কম্পিউটার সিস্টেমস টাতে ‘অজ্ঞাত’ কারণে ৬০% এর বেশী শিক্ষার্থী ফেইল করে। যাইহোক, আমি এই লাইনের মানুষ না তাই এই সবগুলো সাবজেক্ট নিয়ে তেমন আর বলতে পারছি না।

ব্রেমেনে কমিউনিকেশান নিয়ে অনেকগুলো কোর্স অফার করেছে।
Advanced Topics in Digital Communications,
Channel Coding I + II,
Communication Networks: Systems + Theory (former I + II),
Communication Technologies ,
Wireless Communication Technologies ,
Digital Signal Processing,
Advanced Digital Signal Processing,
New Generation Cellular Networks এবং
Speech and Audio Signal Processing
তাই যদি কমিউনিকেশান সাইডে ঝোঁক থাকে তাহলে ব্রেমেনের কোর্সটি স্বর্গ!

উপসংহার:
ডর্টমুন্ডের কোর্সটি রোবোটিক্স, কন্ট্রোল (অটোম্যাশান) ও কগনিটিক্স – এই তিনটি ফিল্ডে আগ্রহীদের জন্য। তিনটি ফিল্ডেই এখানে ভালো কোসওয়ার্ক দেওয়া হয়েছে। ব্রেমেনের কোর্সটি কন্ট্রোল (অটোম্যাশান) ও কমিউনিকেশান ফিল্ডে আগ্রহীদের জন্য।

দুটি কোর্সের মধ্যে কন্ট্রোল (অটোম্যাশান) ফিল্ডটি কমন কিন্তু কোর্স কন্টেন্ট বেশ কিছু যায়গায় বেশ ভিন্ন। তবে দুই ভার্সিটিই স্ব স্ব কন্ট্রোল মডিউলকে বিভিন্ন আকর্ষনীয় কন্টেন্ট দিয়ে সাজিয়েছে। দুটোরই সুবিধা ও অসুবিধা রয়েছে। ডর্টমুন্ডের টাকে আমার ক্যামিক্যাল প্রসেস অটোমেশান মনে হয়েছে, যেখানে ব্রেমেনেরটাকে মেকাট্রনিক্স মনে হয়েছে।

তাই, যদি অটোম্যাশানকে স্পেশালাইজেশান করতে চান তাহলে বলা মুশকিল কোন যায়গায় আসা ভালো। আপনি যদি ইলেক্ট্রিক্যালের ছাত্র হন তাহলে ব্রেমেনে যান,কারণ সেখানে ম্যান্ডাটরি কোর্সে কষ্ট হলেও, অপশনাল কোর্সগুলো আপনার সুবিধা মত হতে পারে বলে মনে হচ্ছে।

যদি রোবোটিক্সে পড়তে আসেন তাহলে ডর্টমুন্ড বেষ্ট। জার্মানিতে বোধহয় হামবুর্গ আর বন ইউনির দুটি কোর্স ছাড়া এমন ডিটেইলড রোবোটিক্স আর কোথাও পড়ায় না (আমি ভুল থাকলে শুদ্ধ করে দিবেন!)।

যদি কমিউনিকেশান পড়তে আসেন তাহলে ব্রেমেন ভালো। তবে কমিউনিকেশানে ঝোঁক থাকলে এমন জগাখিচুরী কোর্সে না এসে কাসেল ইউনি বা অন্যান্য আরও স্পেশালাইজড কোর্সে যাওয়াই উত্তম।

কগনিটিক্স নিয়ে তেমন কিছু বলতে পারলাম না। তবে রোবোটিক্স মেজর নিলে প্রত্যেকেরই কগনিটিক্সের কিছু কোর্স অবশ্যই করা উচিত বলে আমার মনে হয়। ডর্টমুন্ডের কগনিটিক্স কোর্সটি বেশ আকর্ষণীয়ই মনে হয়েছে।

গড় পাশের হার:
ব্রেমেন ও ডর্টমুন্ড উভয় কোর্সই এমনভাবে সাজানো যেখানে বিভিন্ন ডিসিপ্লিনের (ME, EEE, CSE etc) রকমারী কোর্স রয়েছে। এই ফিল্ডটি আসলেই একটি ইন্টার ডিসিপ্লিনারী, এটা জগাখিচুরী মার্কা। সবাইকেই এখানে এসে যথেষ্ট পরিমানে হাবুডুবু খেতে হবে। তাই গড় পাশের হার এখানে বেশ কম।

ডর্টমুন্ডে প্রতিটি কোর্সেই ৫০% এর বেশী শিক্ষার্থীই ফেইল করে। ফেইল করাটা এখানে একেবারেই একটি স্বাভাবিক বিষয়! ফেইল না করে কেউ পার পেয়ে গিয়েছে এমন শিক্ষার্থীর সংখ্যা ১-৫ এর বেশী হবে না! তদুপরি এখানে রোবোটিক্সের প্রফেসর থিসিসেও বেশ কয়েকজন শিক্ষার্থীকে ফেল করিয়ে দেওয়ার কুখ্যাতি অর্জন করেছেন। তবে ডর্টমুন্ডে ম্যান্ডাটরি সাবজেক্ট কম, মাত্র ৫টা (তবে মহামারী পর্যায়ের)।

যেহেতু ম্যান্ডাটরি সাবজেক্ট আরও বেশী তাই ব্রেমেনে পাশের ঝুঁকি ও মানসিক চাপ আরও বেশী হওয়ার কথা। খোঁজ নিয়ে দেখুন এই বিষয়ে।

এলামনাই:
জার্মানিতে ভালো গ্রেড পাওয়াটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এক্ষেত্র তাই ডর্টমুন্ডের সবচেয়ে বড় সুবিধা হচ্ছে এই কোর্সের এলামনাই। আমাদের চোথা গড ফাদার অজয় কান্তি বনিক রয়েছেন যার কাছে গুল্লি মিস হবে কিন্তু ১.০ মিস হবেনা টাইপের চোথার বিশাল বড় ডিজিটাল গোডাউন রয়েছে। তাই পড়ালেখাকে গুরুত্ব দেওয়ার মানসিকতা থাকলে ডর্টমুন্ডকে বিবেচনা করে দেখতে পারেন। ব্রেমেনেও এরূপ সহযোগিতা পাবেন কিনা খোঁজ লাগান। বাঙ্গালী এলামনাই যদি উদার ও সপ্রতিভ না থাকে তাহলে সেখানে গিয়ে নতুন শিক্ষার্থীদের পড়ালেখা ও অন্যান্য কিছু বুঝতে প্রচুর কষ্ট হয়, ক্ষতিও হয়। ডর্টমুন্ডে আসলে এমন সমস্যা কম হবে হয়ত।

চাকুরী বাজার:
প্রথম ও শেষ কথা জার্মান ছাড়া গতি নাই। তবে কিছু ব্যাক্তিগত টেকনিক্যাল স্কিলও দরকার। ভালো প্রোগ্রামিং জানা থাকা এবং এলগোরিদম ডেভেলপ করা, ভালো সার্কিট ডিজাইনিং এবং সেগুলো ব্যাখ্যা করার ক্ষমতা থাকা, এই কোর্সের কোন রিলেটেড ফিল্ডে কোন চাকুরীর অভিজ্ঞতা থাকা ইত্যাদি আনুষঙ্গিক বিষয়ও প্রয়োজন। তবে ভাষাটাই প্রধান।

আমি সাজেষ্ট করব, প্রথম সেমিষ্টারটি ভালোভাবে শেষ করে পরের সেমিষ্টারে নিজের খরচে হলেও ইন্টেনসিভ জার্মান ভাষা শিক্ষা কোর্সে ভর্তি হয়ে কথা বলা পর্যায়ের ভাষাজ্ঞান অর্জন করা অনেক বুদ্ধিমানের হবে।

অন্যান্য:
ডর্টমুন্ড এন.আর.ডব্লু. স্টেটের অন্তর্গত। তাই এখানে পুরো স্টেটে স্টুডেন্ট টিকেট দিয়ে ঘুরে বেড়ানো যায়। এবং এই স্টেটটি বিশাল বড়। এক কোনা থেকে আরেক কোনায় যেতেই ৫/৬ঘন্টা লাগবে। তাই ঘুরাঘুরির জন্য এই স্টেটের কোন তুলনা নাই। নামকরা অনেকগুলো শহর এই স্টেটে কাছাকাছি দুরত্বের মধ্যে অবস্থিত। তাই খন্ডকালীন চাকুরী পাওয়া সহজ হতে পারে এখানে।
ব্রেমেনে এরূপ সুবিধা আছে কিনা খবর নিয়ে দেখুন।

লেখাটি পড়ার জন্য আপনাদেরকে ধন্যবাদ।

~ শাওন সূত্রধর,
মাষ্টারস ছাত্র,
অটোমেশান এন্ড রোবোটিক্স,
টি.উ. ডর্টমুন্ড