যারা ইয়েনা ইউনিভার্সিটি (Friedrich Schiller University Jena) থেকে অফার লেটার পেয়েছেন তাদের জন্য।।!

প্রথমেই যারা অফার লেটার পেয়েছেন তাদের অনেক শুভকামনা আর যারা এখনও অপেক্ষা করছেন তাদের চিন্তার কিছু নাই, জুলাই মাসের শেষে ও অনেক ডিপার্টমেন্ট অফার লেটার দেয়। খুব ভাল লাগছে যে এ বছর অনেক স্টুডেন্ট অফার লেটার পেয়েছেন এবং আশা করছি সবাই ভিসা পেয়ে ইয়েনা বাংলাদেশী কমিউনিটি আরও বড় করবেন।

http://www.uni-jena.de/en/start.html

এবার আসল কথায় আসি, আপনার যারা বিভিন্ন প্রয়জনে আমাকে ইনবক্স করে বা গ্রুপে ট্যাগ করে পাচ্ছেন না তাদের কাছে আমি দুঃখিত। এক্সামের ঝামেলার কারণে ফেসবুক এ খুব একটা বসি না। তাই আপনাদের সবার জন্য এই ডক লিখা,

১। প্রথম অফার লেটার পাওয়ার পর যত তারাতারি সম্ভব কাজ শুরু করতে হবে। সম্ভব হলে যেদিন অফার লেটার পাবেন সেদিন থেকেই। উইন্টার সেমিস্টারে অনেক ইন্টারন্যাশনাল স্টুডেন্টর চাপ থাকে তাই দেরি করলে হয়ত অনেক বড় ক্ষতি হয়ে জেতে পারে।

২। অফার লেটারের হার্ড কপি না সফট কপি?? আমার জানা মতে, সফট কপি দিয়েই প্রাথমিক কাজ গুল করা যায়। আমার সময় আমি তাই করেছিলাম, তাই নতুন কোন নিয়ম যদি না হয়ে থাকে তাহলে ইন্টার্ভিউ ডেট, ব্লক অ্যাকাউন্ট, ইনসিওরেন্স, ও অন্যান্য প্রয়োজনীয় স্টেপস সফট কপি প্রিন্ট দিয়েই করতে পারবেন। তবে, রিসেন্ট যারা এসেছেন তাদের কাছ থেকে সিউর হয়ে নিয়েন।

৩ । Accommodation ???, ইয়েনা তে এতো বেশি স্টুডেন্ট যে, আপনার জন্য বড় কষ্টকর কাজ হবে বাসা ম্যানেজ করা। studentenwerk Theuringen, অনেক সময় স্টুডেন্ট পাশের সিটি ভাইমার,(Weimer) বা Erfurt এ পাঠিয়ে দেয়। তাই যদি studentenwerk Theuringen এ অ্যাপ্লাই না করে থাকে যত তারা তারি পারেন করে ফেলেন। আর যারা অ্যাপ্লাই করেছেন তারা অপেক্ষা করেন। সেমিস্টার শুরুর ৬ সপ্তাহ পূর্বে ওরা রুম ডিস্ট্রিবিউট করা শুরু করে। আপনি যদি এপ্রিল, মে তে অ্যাপ্লাই করে থাকেন তাহলে আশা করছি, দেশ ত্যাগ করার আগেই রুম পাবেন। যদি ভিসা ইন্টার্ভিউয়ের আগে রুম না পান তাহলে, কিছু দিনের জন্য ইয়ুথ হোস্টেল বুকিং দেন।

Studentenwerk Theuringen, এর অ্যাপ্লাই কনফার্ম ইমেইল ও ইয়ুথ হোস্টেল বুকিং এর কপি প্রিন্ট দিয়ে ভিসা ইন্টার্ভিউয়ের সময় নিয়ে যান। আমার মনে হয় এটাই যথেষ্ট। তারপরও নতুনদের কাছ থেকে আরও একটু ভাল করে জেনে নেন।
আমি এই লিখার শেষে প্রাইভেট হউসিং এর দুইটা লিঙ্ক দিলাম ওখানেও বাসার জন্য চেষ্টা করে দেখতে পারেন।

৪। ভিসা পেলে অবশ্যয়, ইন্টারন্যাশনাল অফিসে মেন্টর এর জন্য অ্যাপ্লাই করবেন, প্রতিটা ইন্টারন্যাশনাল স্টুডেন্টের জন্য বিশ্ববিদ্যালয় থেকে মেন্টরের বাবস্থা আছে যে আপনাকে ইয়েনা পোঁছানোর পর ট্রেন স্টেশন থেকে পিকআপ থেকে শুরু করে আপনার যাবতীয় আডমিনিস্ট্রাটিভ কাজে হেল্প করবে। জার্মানি তে পোঁছানোর পর মেন্টর থাকলে অনেক হেপ্ল হয় আর এর জন্য আপনাকে কোন টাকা দিতে হবে না, মেন্টররা ভলেন্টিয়ার হিসেবে কাজ করে।

৫। জার্মান ভাষা না জানা থাকলে, এখন থেকেই ভাষা শিক্ষা শুরু করে দেন। ভাষা জানা থাকলে এখানের পথ চলা অনাকে সহজ হয়ে যায়।

https://www.facebook.com/groups/wggesuchtjena/
http://www.wg-gesucht.de/wg-zimmer-in-Jena.66.0.1.0.html

সবার জন্য শুভকামনা।